দেশ সংযোগ

মুন্সীগঞ্জের টংঙ্গীবাড়ীতে উপজেলা আ’লীগ সভাপতির বিরুদ্ধে মামলা

মুন্সীগঞ্জের টংঙ্গীবাড়ীতে উপজেলা আ'লীগ সভাপতির বিরুদ্ধে মামলা জনসংযোগ

ওসমান গনি, স্টাফ রিপোর্টার

মুন্সীগঞ্জ-২(টংঙ্গীবাড়ী-লৌহজং) আসনে সংসদ সদস্য পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী এক নারী প্রার্থীকে নিয়ে করুচিপূর্ণ বক্তব্যে দেওয়ার অভিযোগে টংঙ্গীবাড়ী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতির হাফিজ আল আসাদ বারেকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়েছে। মুন্সীগঞ্জ-২ আসনের বিগত সংসদ নির্বাচনের স্বতন্ত্র প্রার্থী অ্যাডভোকেট সোহানা তাহমিনা বাদী হয়ে বিজ্ঞ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ৪ নং আমলী আদালতে মানহানি ও ভয়ভীতির অভিযোগে এ মামলা দায়ের করেন।

মামলার বিবাদী হাফিজ আল আসাদ বারেক টংঙ্গীবাড়ী উপজেলার আউটশাহী গ্রামের মৃত হাসেম শেখের ছেলে। মামলাটি আমলে নিয়ে ওই আদালতের বিচারক সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মানিক দাস মামলাটি সিআইডিতে তদন্ত দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন ওই আদালতের বেঞ্চ সহকারী বুলবুল আহমেদ।

মামলা সূত্রে জানাযায়,দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে মুন্সীগঞ্জ-২ (টংঙ্গীবাড়ী-লৌহজং)আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ছিলেন এড.সোহানা তাহমিনা।ভোটের আগে গত ২৮ জানুয়ারি টংঙ্গীবাড়ী উপজেলার মাদ্রা এলাকায় এক নির্বাচনী সভায় উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি হাফিজ আল আসাদ জনসম্মুখে সোহান তাহমিনার বৈধ বিবাহের বিষয়ে প্রশ্নবিদ্ধ সহ বিভিন্ন বিষয়ে উচ্চারণ করে হেয়পন্য করে বিভিন্ন বক্তব্য দেন।যা পরবর্তীতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হলে আলোচনা-সমালোচনা সৃষ্টি হয়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিষয়টি দৃষ্টিগোচর হওয়ায় রবিবার আদালতের দ্বারস্থ হন এড.সোহানা তাহমিনা।

এ বিষয়ে অ্যাডভোকেট সোহানা তাহমিনা বলেন,আমি নারী প্রার্থী ছিলাম।আমাকে হেয়পন্ন করে কুরুচিপূর্ন অশ্লীল বক্তব্য দিয়েছে।ফেসবুকে তা ভাইরাল হয়েছে।বিষয়টি নারী হিসাবে কষ্টদায়ক।আমি এর যথাযোগ্য বিচার চাই।

আপনার পণ্য বা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন এখানে

এ সম্পর্কিত আরও খবর

আপনার পণ্য বা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন এখানে
Back to top button

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker