আটক

বগুড়ার শিবগঞ্জে ডিপ মেশিনের বৈদ্যুতিক মিটার চুরি চক্রের তিন সক্রিয় সদস্য আটক

বগুড়ার শিবগঞ্জে ডিপ মেশিনের বৈদ্যুতিক মিটার চুরি চক্রের তিন সক্রিয় সদস্য আটক জনসংযোগ

মোঃ জান্নাতুল নাঈম, বগুড়া শিবগঞ্জ প্রতিনিধিঃ

বগুড়ার সহকারী পুলিশ সুপার ( শিবগঞ্জ ও সোনাতলা সার্কেল তানভীর হাসান ও শিবগঞ্জ থানার ওসি আঃ রউফ এর দিকনির্দেশনায় এবং এসআই রেজাউল করিম, এএসআই মতিয়ার রহমান সহ র‍্যাব ১২ এর সমন্বয়ে এই অভিযানে বৈদ্যুতিক মিটার চুরি চক্রের তিন সক্রিয় সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২ টার দিকে শহরের সাতমাথা এলাকা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তার কৃতরা হলো- বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার বিশ্বনাথপুরের শুকুর উদ্দিনের ছেলে আনোয়ার হোসেন (২০), সোনাকুড়া এলাকার শাহজাহান সরদারের ছেলে রাজু সরদার (২৮) এবং জামুরহাটের আঃ আলীমের ছেলে শাকিল আহমেদ (২২)।

এ সম্পর্কিত আরও খবর

শুক্রবার বিকালে র‍্যাব-১২ বগুড়া কার্যালয় থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

এর আগে গত ৩ ফেব্রুয়ারি শিবগঞ্জের সিদ্ধিপুর এলাকায় আব্দুল মান্নান মন্ডলের গভীর নলকূপের বৈদ্যুতিক মিটার চুরি হয়। তখন তিনি শিবগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন।

র‍্যাবের পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বৈদ্যুতিক মিটার চুরির ঘটনায় মামলা হলে এই চক্রকে ধরতে র‍্যাবের চৌকস টিম অভিযানে নামে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২ টার দিকে এই চক্রের ৩ সক্রিয় সদস্যকে শহরের সাতমাথা এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

র‍্যাব-১২ বগুড়ার কোম্পানি কমান্ডার মীর মনির হোসেন জানান, আসামীরা দীর্ঘদিন যাবত বৈদ্যুতিক মিটার চুরি করে চিরকুটে বিকাশ নাম্বার লিখে রেখে অথবা ফোন করেও বিকাশ নাম্বার দিয়ে টাকা দাবি করতো। পরবর্তীতে দাবিকৃত টাকা পেলে বৈদ্যুতিক মিটারের অবস্থান ভিকটিমকে বলে দিত। তারা অত্যন্ত চতুর হওয়ায় অপকর্মের কোন প্রমাণ রাখতো না। এমনকি একটি মোবাইল সীম একজন টার্গেটের ক্ষেত্রে ব্যবহার করতো।

এসআই রেজাউল করিম ও এএসআই মতিয়ার রহমান তারা বলেন গ্রেপ্তার বৈদ্যুতিক মিটার চুরি চক্রের ওই তিন সক্রিয় সদস্যের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য শিবগঞ্জ থানায় সোপর্দ করা হয়েছে।

অপরদিকে ৯/২/২৪ তারিখে গভীর রাত্রে রায়নগর ইউনিয়নের সেকেন্দ্রাবাদ জিগাতলা ও সেকেন্দ্রাবাদ পূর্বপাড়া নামক স্থানে দুইটি ডিপ মেশিনের বৈদ্যুতিক মিটার চুরির ঘটনা ঘটে ওই এলাকার পলাশ ও দেলোয়ার মাস্টারের বৈদ্যুতিক মিটার চুরি হওয়ায় এলাকায় আতঙ্ক বিরাজ করছে এবং মোবাইল নাম্বার দিয়ে চাদা দাবি করা হচ্ছে। থানায় মামলা করেছেন কিনা জানতে চাইলে তারা বলেন মামলা করে কোন লাভ হয় না।

গত বছরে চুরি হয়েছে এবারও চুরি হয়েছে। জানতে চাইলে তারা আরো বলেন মিটার চুরি যাওয়াতে প্রায় দুইশত বিঘা জমি হুমকির মুখে পড়েছে ।

আপনার পণ্য বা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন এখানে

এ সম্পর্কিত আরও খবর

আপনার পণ্য বা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন এখানে
Back to top button

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker